১৬:০৮:৪২

২০৩০ সালে বিশ্বে পর্যটকের সংখ্যা দাঁড়াবে ১৮০ কোটি

শুনুন /

প্রাচ্য-প্রতীচ্যের সম্মিলন: ২০১১ সালের বিশ্ব পর্যটন দিবসের আলোকচিত্র প্রতিযোগিতায় রানার আপ রবিন চক্রবর্তির তোলা ছবি।

জাতিসংঘের বিশ্ব পর্যটন সংস্থা, ওর্য়াল্ড ট্যুরিজম অর্গানাইজেশন , ইউএনডাব্লুটিও বলছে যে ২০৩০ সাল নাগাদ বিশ্বে পর্যটকের সংখ্যা দাঁড়াবে প্রায় একশো আশি কোটি, অর্থাৎ প্রতি পাঁচজনে একজন বিশ্ব জুড়ে ভ্রমণরত থাকবেন।

ইউএনডাব্লুটিও'র মহাসচিব তালেব রিফাই জাতিসংঘের সংবাদ বিভাগকে বৈশ্বিক উন্নয়ন এবং বিশ্বকে একটি উন্নত জায়গায় রুপান্তরে পর্যটনের ভূমিকার ওপর আলোকপাত করেন।

মি রিফাই বলেন যে এটি এক অবিশ্বাস্য উপায়ে বিশ্বকে কাছাকাছি নিয়ে আসছে। এটি বিশ্বকে ছোট করে এনেছে, আরও সংযুক্ত করেছে, আরও তথ্যসমৃদ্ধ করেছে এবং এভাবেই একটি আরও যত্নশীল বিশ্বে রুপান্তরিত করেছে।

তিনি বলেন একইসময়ে বিশ্বায়ন প্রক্রিয়া কিছু গুরুতর চ্যালেঞ্জও তৈরি করেছে , যার মধ্যে আছে দূষণ, বর্জ্য, শ্রমশোষণ, পতিতাবৃত্তি, শিশু নির্যাতন এবং প্রাকৃতিক সম্পদের লুণ্ঠন।

মি রিফাই বলেন যে সবধরণের মানবীয় কার্য্যক্রমের ইতিবাচক দিক যেমন আছে তেমনই আছে নেতিবাচক দিক। পর্যটনের প্রভাব যাতে ইতিবাচক হয় এবং টেকসই উন্নয়নে তা অবদান রাখে সেটি নিশ্চিত করার দায়িত্ব সাধারণ মানুষের।

মি রিফাই বলছিলেন যে ২০৩০ সাল নাগাদ একশো আশি কোটি পর্যটকের মানে হতে পারে একশো আশি কোটি সুযোগ কিম্বা একশো আশি কোটে দূর্যোগ এবং এর সবটাই নির্ভর করে আমাদের ওপরে।

পর্যটন শিল্পের সম্ভাবনার স্বীকৃতি হিসাবে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদ ২০১৭ সালকে উন্নয়নের জন্য টেকসই পর্যটন বর্ষ ঘোষণা করেছিল।

Loading the player ...

সংযোগ বজায় রাখুন