১৫:০০:৩৩

সিরীয় শান্তি আলোচনায় ধৈর্য্য ও সময় প্রয়োজন : ব্রাহিমী

শুনুন /

জাতিসংঘ ও আরব লীগের বিমেষ দূত লাখদার ব্রাহিমী বলেছেন যে জেনেভায় শুক্রবার শেষ হওয়া সিরীয় সরকার ও বিরোধদের মধ্যেকার প্রথম দফা আলোচনায় ধীর কিন্তু পরিমিত অগ্রগতি হয়েছে।

তিনি বলেন যে উভয়পক্ষ গ্রহণযোগ্য আচরণ করলেও তাদের মধ্যে ব্যবধান অনেক।

মি ব্রাহিমী বলেন যে শান্তি আলোচনায় অগ্রগতি না হওয়ায় কোটি কোটি সিরীয় নাগরিক হতাশ হয়েছেন ঠিকই, কিন্তু এই যুদ্ধ সিরিয়াকে যে নরকে নিপতিত করেছে তা অতিক্রম করতে ধৈর্য্য ও সময় প্রয়োজন।

তিনি বলেন যে দশদিনের এই আলোচনায় উভয়পক্ষই সিরিয়ায় রাজনৈতিক সমাধানের লক্ষ্যে জেনেভা ঘোষণা র্পূণ বাস্তবায়নের বিষয় আলোচনা চালিয়ে যেতে সম্মত হয়েছে।

মি ব্রাহিমী বলেন যে উভয়পক্ষের মধ্যে দুস্তর ব্যবধান রয়ে গেছে, অন্যকিছুর ভান করা তাই অর্থহীন।তা সত্ত্বেও, আমাদের আলোচনায় সামান্য কিছু অভিন্ন অবস্থান লক্ষ্য করা গেছে যা সম্ভবত উভয়পক্ষই বুঝতে র্ব্যথ হয়েছেন।

মি ব্রাহিমী বলেন যে উভয় পক্ষই জানেন যে জেনেভা ঘোষণা বাস্তবায়ন করতে হলে স্থায়ীভাবে যুদ্ধ বন্ধ এবং র্পূণ নির্বাহী ক্ষমতাসম্পন্ন একটি অন্তবর্তী সরকার ও সংশ্লিষ্ট বিষয়গুলোতে তাঁদেরকে র্পূণাঙ্গ সমঝোতায় পৌঁছুতে হবে। উভয় পক্ষই সহিংসতার অবসান ঘটানো কতোটা জরুরি তা উপলব্ধি করছেন।

পরবর্তী দফা শান্তি আলোচনা শুরুর জন্য উভয় প্রতিনিধিদলেরই আগামী দশই ফেব্রুয়ারী জেনেভায় ফেরার কথা রয়েছে।

অলিম্পিক যুদ্ধবিরতির জন্য জাতিসংঘ মহাসচিবের আহ্বান

রাশিয়ার শোচিতে শীতকালীন অলিম্পিক ও প্যারা-অলিম্পিক আসরের প্রাক্কালে জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুন এক বিবৃতিতে বিশ্বব্যাপী অস্ত্রবহনকারী সবার প্রতি অস্ত্রসম্বরণ করে অলিম্পিক যুদ্ধবিরতি পালনের আহ্বান জানিয়েছেন।

মি বান বলেন যে সমতা, সুষ্ঠু প্রতিযোগীতা, পারস্পরিক শ্রদ্ধা এবং বৈষম্যহীনতার অভিন্ন ঘোষণার অধীনে গেমসে অংশগ্রহণকারীদের একত্রে সমবেত হওয়া উচিৎ।

মহাসচিব বলেন যে অলিম্পিক যুদ্ধবিরতির ধারণা প্রোথিত আছে এই আশাবাদের মধ্যে যে অন্তত একদিনের জন্যও মানুষ এবং জাতিসমূহ তাদের মতপাথর্ক্য দূরে রাখতে পারলে শেষপর্য্যন্ত স্থায়ী যুদ্ধবিরতিতে উপনীত হওয়া সম্ভব।

জাতিসংঘ মহাসচিবের দূত হলেন নিউইয়র্কের সাবেক মেয়র

জাতিসংঘ মহাসচিব নিউইয়র্কের সাবেক মেয়র মাইকেল ব্লুমর্বাগকে নগর ও জলবায়ু পরিবর্তনের বিষয়ে বিশেষ দূত নিয়োগ করেছেন।

শুক্রবার এই নিয়োগের কথা ঘোষণা করতে গিয়ে জাতিসংঘের উপ-মুখপাত্র ফারহান হক উল্লেখ করেন যে মি ব্লুমর্বাগ বিশ্বের বিভিন্ন বৃহৎ নগরীর নেটওয়ার্কের একটি প্রতিষ্ঠান, সি ফরটি ক্লাইমেট লিডারশিপ গ্রুপের পরিচালকমন্ডলীর প্রেসিডেন্ট হিসাবে কাজ করেছেন।

এই গ্রুপ জলবায়ূ পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলায় স্থানীয়ভাবে টেকসই বিভিন্ন পদক্ষেপ বাস্তবায়নে অঙ্গীকারাবদ্ধ যেসব উদ্যোগ বৈশ্বিক উদ্যোগকে সহায়তা করবে।

জীবনসায়াহ্নের বেদনা উপশমকারী সেবা পাচ্ছেন প্রতি দশজনে মাত্র একজন

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এবং ওর্য়াল্ডওয়াইড প্যালিয়েটিভ কেয়ার অ্যালায়েন্স জীবনসায়াহ্নের বেদনা উপশমকারী পরিচর্য্যা বিষয়ক বৈশ্বিক মানচিত্র প্রকাশ উপলক্ষ্যে বলেছে যে বেদনানাশক চিকিৎসা সেবা প্রয়োজন এমন প্রতি দশজনে মাত্র একজন তা লাভ করছেন।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে যে গুরুতর অসুস্থতার চরম পর্য্যায়ে আক্রান্ত রোগীদের বেদনা উপশমকারী চিকিৎসা শুধু বেদনা উপশমেই সীমিত নয়, বরং এতে তার শারীরিক, মানসিক এবং আবেগের ভোগান্তিও অর্ন্তভুক্ত।

সংস্থার একজন জৈষ্ঠ্য উপদেষ্টা, ডঃ সেসিলিয়া সেপুলভেডা বলেন যে প্রতিবছর প্রায় চারকোটি মানুষের জীবনসায়াহ্নের পরিচর্য্যা প্রয়োজন।

ডঃ সেপুলভেডা বলেন যে আমাদেরকে ওইসব রোগীদের কাছে পৌঁছাতে হবে এবং তাঁদের কষ্ট লাঘবের চেষ্টার পাশাপাশি তাঁদের পরিবারের সদস্যদেরও সাহায্য করা প্রয়োজন।

ডঃ সেপুলভেডা বলেন যে এই মানচিত্র এসব সমীক্ষার চিত্র তুলে ধরছে এবং একইসাথে কোথায় এই সেবা পাওয়া যায় তাও নির্দেশ করছে।এবং আপনি যদি এই মানচিত্র দেখেন তাহলে দেখবেন যে কি বিপুল চাহিদা এখনও অর্পূণ রয়ে গেছে।

নিম্নমানের কারণে শিক্ষার সংকট গুরুতর: ইউনেস্কো

বিশ্বব্যাপী সরকারগুলো শিশুদের শিক্ষালাভ নিশ্চিত করতে না পারার কারণে নিম্নমানের শিক্ষায় বছরে বারো হাজার ন'শো কোটি ডলার ক্ষতির সম্মুখীন হচ্ছে।

জাতিসংঘের শিক্ষা, বিজ্ঞান ও সংস্কৃতি বিষয়ক সংস্থা, ইউনেস্কো বুধবার প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে এই তথ্য দিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয় যে বিশ্বব্যাপী শিক্ষাব্যায়ের দশ শতাংশ ব্যয় হচ্ছে নিম্নমানের শিক্ষায়, যার ফলে দরিদ্র দেশগুলোতে প্রতি চারজনের মধ্যে একটি শিশু একটি বাক্যও পড়তে সক্ষম নয়।

মিশরে সাংবাদিকদের হয়রানি অগ্রহণযোগ্য: জাতিসংঘ

মিশরে সাংবাদিকদের বিরুদ্ধে সন্ত্রাসে জড়িত থাকার অভিযোগ আনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছে জাতিসংঘ।

জাতিসংঘের মানবাধিকার বিষয়ক হাইকমিশনার, নাভি পিল্লাই বলেন যে এই অভিযোগ দেশটিতে মতপ্রকাশের স্বাধীনতার প্রতিফলন ঘটে যে গণমাধ্যমে তাকে হয়রানি এবং ভীতিপ্রদর্শনের শামিল।

তিনি আন্তর্জাতিক সম্প্রচার প্রতিষ্ঠান আলজাজিরার চারজন বিদেশী এবং ষোলোজন স্থানীয় সাংবাদিকের বিরুদ্ধে আনীত সন্ত্রাসী গোষ্ঠীকে সহায়তা এবং জাতীয় র্স্বাথকে ক্ষতিগ্রস্ত করার অভিযোগকে অস্পষ্ট বলে অভিহিত করেন।

Loading the player ...

সংযোগ বজায় রাখুন